মাদকাসক্ত ছেলের যন্ত্রণায় অতিষ্ঠ হয়ে পুলিশে দিলেন বাবা

ফরিদ আহম্মেদ, রাজশাহী (দুর্গাপুর)

রাজশাহীর দুর্গাপুর উপজেলায় মাদকাসক্ত ছেলের যন্ত্রণায় অতিষ্ঠ হয়ে তাঁকে পুলিশে দিয়েছেন বাবা। সোমবার (২ জানুয়ারী) রাত সাড়ে আটটায় ভ্রাম্যমাণ আদালত ছয় মাসের কারাদণ্ড দিয়ে তাঁকে রাজশাহী কেন্দ্রীয় কারাগারে পাঠান।

ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মো. সোহেল রানা। কারা দণ্ডাদেশপ্রাপ্ত মাইনুর (২২) বাড়ি উপজেলার ঝালুকা ইউনিয়নের সাইবাড় গ্রামের লালু শাহের ছেলে।

মাইনুরের বাবা লালু শাহ প্রতিবেদককে জানায়, চার বছর ধরে মাইনুর মাদকাসক্ত। নেশার টাকা জোগাড় করতে প্রায়ই ঘর থেকে বিভিন্ন জিনিসপত্র কখনও চুরি আবার কখনো জোরপূর্বক বিক্রি করতেন। তার এমন কর্মকান্ডে বাধা দিলে মা-বাবা প্রায়ই মারধর শিকার হতেন। ছেলের মাদকাসক্তি ও অত্যাচারে অতিষ্ঠ হয়ে সোমবার সকালে বাধ্য হয়ে দুর্গাপুর থানায় নিয়ে গিয়ে পুলিশের হাতে তুলে দেন। পরে রাত সাড়ে আটটার দিকে ভ্রাম্যমাণ আদালত বসিয়ে তাঁকে ছয় মাসের কারাদণ্ড দেন দুর্গাপুর ইউএনও।

এ সময় দুর্গাপুর থানার একজন সহকারী উপপরিদর্শক (এএসআই), বাবা লালু শাহ্ ও তাঁর বড় ভাই রিপনসহ পরিবারের লোকজন উপস্থিত ছিলেন।

পরিবারের বরাত দিয়ে দুর্গাপুর ইউএনও মো. সোহেল রানা বলেন, ‘২০১৪ সালে মাইনুল অষ্টম শ্রেনী পাস করে। বন্ধুদের পাল্লায় পড়ে এক পর্যায়ে মাদকাসক্ত হয়ে পড়েন তিনি। নেশার টাকা জোগাড় করতে প্রায়শই বাড়ির আসবাবপত্র চুরি করে বিক্রি করতে থাকেন মাইনুর। অনেক বোঝানো বোঝানোর পরও সে শোধরায়নি। উল্টো বাবা-মা-ভাইকে মারধর করতেন। তাই বাধ্য হয়ে তার বাবা তাকে পুলিশের হাতে তুলে দেয়। পরে দুর্গাপুর থানার ওসি বিষয়টি আমাকে অবগত করলে আমি গিয়ে তাকে ভ্রাম্যমাণ আদালত বসিয়ে ছয় মাসের কারাদন্ড প্রদান করি।

অগ্নিবাণী/এফএ

এই সংবাদটি শেয়ার করুন
Share on Facebook
Facebook
Tweet about this on Twitter
Twitter
Pin on Pinterest
Pinterest

Leave a Reply

Your email address will not be published.