রাজশাহীর বাঘায় বিক্রয় প্রতিনিধিকে কুপিয়ে হত্যা

বাঘা (রাজশাহী) প্রতিনিধি

রাজশাহীর বাঘা উপজেলায় জহুরুল ইসলাম (২৩) নামে এক বিক্রয় প্রতিনিধিকে কুপিয়ে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা। আজ বুধবার সকাল ৯টায় উপজেলার তেঁতুলিয়া শিকদারপাড়া এলাকার একটি আম বাগান থেকে তার ক্ষতবিক্ষত লাশ উদ্ধার করে পুলিশ।

নিহত জহুরুল উপজেলার মনিগ্রাম বাজার সংলগ্ন মধ্যপাড়া গ্রামের বাসিন্দা। তার বাবার নাম রফিকুল ইসলাম। জহুরুলের নিজেরও একটি ছেলে সন্তান রয়েছে। একটি মোবাইলের দোকানে প্রতিনিধি হিসেবে কাজ করতেন তিনি।

পুলিশ জানায়, বাঘার পানিকামড়া এলাকায় সততা মোবাইল জোন নামে মোবাইলের একটি দোকানে বিক্রয় প্রতিনিধি হিসেবে কাজ করতেন জহুরুল। গতকাল মঙ্গলবার সকাল ৮টায় কাজে যাওয়ার উদ্দেশে বাসা থেকে বের হন তিনি।

সততা মোবাইল জোনের মালিক মেহেদি হাসান পুলিশকে জানান, মঙ্গলবার সকাল ৯টায় মোবাইল ও বিভিন্ন সামগ্রী নিয়ে লালপুর-গোপালপুরসহ বিভিন্ন মার্কেটে সরবরাহের উদ্দেশে রওনা দেন জহুরুল। প্রতিদিন সন্ধ্যায় তিনি হিসাব জমা দেন, কিন্তু গতকাল তাকে না পেয়ে মোবাইলে কল দিয়ে সেটি বন্ধ পাওয়া যায়।

জহুরুলের পরিবারকে জানানোর পরও সন্ধান না পেয়ে সন্ধ্যায় বিষয়টি থানায় জানান মেহেদি। আজ বুধবার সকালে জহুরুলের লাশ তেঁথুলিয়া শিকদারপাড়া গ্রামের আমবাগানে পড়ে থাকতে দেখে পুলিশে খবর দেয় স্থানীয়রা।

বাঘা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নজরুল ইসলাম জানান, ঘটনাস্থল থেকে লাশ উদ্ধার করার পর ময়নাতদন্তের জন্য রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসাপালের ফরেনসিক বিভাগে পাঠানো হয়েছে। জহুরুলের লাশের পাশে তার ব্যবহৃত মোটরসাইকেল, একটি স্মার্টফোন এবং একটি দা উদ্ধার করা হয়েছে।

ওসি আরও জানান, নিহতের মাথাসহ শরীরের বিভিন্ন স্থানে রক্তাক্ত জখমের দাগ রয়েছে। হত্যার রহস্য উদঘাটনে তদন্ত শুরু হয়েছে।

ঘটনা জেনে চারঘাট বাঘা সার্কেল এসপি নুরে আলম সিদ্দিক ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।

এই সংবাদটি শেয়ার করুন
Share on Facebook
Facebook
Tweet about this on Twitter
Twitter
Pin on Pinterest
Pinterest

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *