নওগাঁয় ট্রাকে ধর্ষণের চেষ্টা, চালক গ্রেপ্তার

নওগাঁ প্রতিনিধি

চলন্ত ট্রাকে চালকসহ ৪ হেলপারের বিরুদ্ধে এক নারীকে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগ পাওয়া গেছে।

সোমবার নওগাঁ থেকে মহাদেপুরগামী ট্রাকের চালক বিপদগ্রস্থ এক নারীকে তার গন্তব্যস্থলে পৌঁছে দেওয়ার কথা বলে ট্রাকে তুলে নিয়ে ধর্ষণ চেষ্টা করে। এ সময় এলাকাবাসী ট্রাক চালক সেলিমকে (৩০) ধরে রেখে পুলিশে সোপর্দ করে।

জানা যায়, গত সোমবার সন্ধায় নওগাঁ থেকে মহাদেবপুরগামী ট্রাকে এক বিপদগ্রস্থ নারীকে তার গন্তব্যস্থলে পৌঁছে দেওয়ার জন্য ট্রাকে তুলে নেয়। চলন্ত ট্রাকটি রাত ৯টার দিকে মহাদেবপুর উপজেলার আত্রাই নদীর মহিশবাথান ঘাটে বালু মহলে পৌঁছে।

এমন সময় ট্রাক চালক সেলিম (৩০) ট্রাকের উপর নারীকে ধর্ষণের চেষ্টা করলে তার চিৎকারে গ্রামের লোকজন ছুটে এসে ট্রাকচালক সেলিমকে হাতে নাতে আটক করে। তাকে মারধর করে ঘটনাস্থলে বেঁধে রাখে।

পরে ট্রাকচালক সেলিমকে থানায় সোপর্দ করার নামে বুজে নিয়ে ইজারাদার মোয়াজ্জেম হাজী তাকে ছেড়ে দেয়।

পরে থানা পুলিশের চাপের মুখে আওয়ামী লীগ নেতা বালু মহাল ইজারাদার মোয়াজ্জেম হাজী চালক সেলিমকে থানায় সোপর্দ করলে পুলিশ তাকে গ্রেপ্তার করে জেল হাজতে পাঠিয়ে দেয়।

এ ঘটনার খবর পেয়ে মহাদেবপুর থানার ওসি (তদন্ত) সিদ্দিকুর রহমান ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে বুজরকান্তি গ্রাম থেকে ওই নারীকে উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে।

এ বিষয়ে ওই নারী বাদি হয়ে মঙ্গলবার ট্রাক চালক সেলিম (৩০), হেলপার সোবহান (২০), জাহিদ (১৯), সুমন ওড়ফে কিস্তিকে আসামী মহাদেবপুর থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে মামলা দায়ের করে।

মহাদেবপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. নজরুল ইসলাম জুয়েল জানান, এ ঘটনায় থানায় মামলা হয়েছে। চালক গ্রেপ্তার রয়েছে। ঘটনা প্রাথমিক তদন্তে প্রমাণিত।

এই সংবাদটি শেয়ার করুন
Share on Facebook
Facebook
Tweet about this on Twitter
Twitter
Pin on Pinterest
Pinterest

Leave a Reply

Your email address will not be published.