রাজশাহীতে মেয়াদ উত্তীর্ণ ও লাইসেন্সবিহীন বেনামি ঔষধ জব্দ ও জরিমানা

নিজেস্ব প্রতিবেদক: রাজশাহীতে মেয়াদ উত্তীর্ণ ও বেনামি লাইসেন্সবিহীন ঔষধ জব্দ ও জরিমানা। রাজশাহী নগরীর ১০ ফার্মের্সীর দোকানকে ৭ লাখ ৮০ হাজার টাকা জরিমানা করেছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। রোববার দুপুরে নগরীর লক্ষ্মীপুর এলাকায় এ অভিযান চালায় র‍্যাব-৫।

ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেন র‍্যাবের নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট নিজাম উদ্দিন আহমেদ।

বিশেষ এই অভিযানে অংশ নেন রাজশাহী র‌্যাবের উপ-অধিনায়ক মেজর শিবলী মোস্তফা, সিপিএসসি কোম্পানী অধিনায়ক এটিএম মাইনুল ইসলাম, মেডিকেল অফিসার ক্যাপ্টেন আশরাফুল ইসলাম।

অভিযানে অনুমোদহীন ও নিষিদ্ধ ঘােষিত ফুড সাপ্লিমেন্ট, নির্দিষ্ট তাপমাত্রার বাইরে ওষুধ সংরক্ষণ এবং ইনজেকশনসহ মেয়াদ উত্তীর্ণ ঔষধ জব্দ করেন ভ্রাম্যমাণ আদালত ।

অভিযানে ওল্ড ফার্মেসিকে ৫ লাখ টাকা, সোসো এন্টার প্রাইজকে ৩০ হাজার টাকা, জামান ফার্মেসিকে ৫০ হাজার টাকা, রয়েল ফার্মেসিকে ২০ টাকা, দৃষ্টি ফার্মেসিকে ১০ হাজার টাকা, রুনা ফার্মেসিকে ৫০ হাজার টাকা, ট্রপিক্যাল ফার্মেসিকে ৩০ হাজার টাকা, আল নুর ফার্মেসিকে ৫০ হাজার টাকা, মাদার ল্যান্ড হসপিটালকে ৩০ টাকা, ওমি এন্টারপ্রাইজকে ১০ দশ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।

রাজশাহীতে মেয়াদ উত্তীর্ণ ও বেনামি লাইসেন্সবিহীন ঔষধ জব্দ ও জরিমানা

নিজাম উদ্দিন আহমদ সাংবাদিকদের জানান, দোকানগুলো থেকে মেয়াদ উত্তীর্ণ ঔষধ, নিষিদ্ধ ফুড সাপ্লিমেন্টসহ নির্দিষ্ট তাপমাত্রার বাইরে ইনজেকশন জব্দ করা হয়। জব্দ বরা হয় সরকারী কিছু ওষুধও। পরে প্রকাশ্যে সেগুলো ধ্বংস করা হয়।

নিজাম উদ্দিন জানান, সরকারী ঔষধ পাচারকারীদের সম্পর্কে তদন্ত করা হচ্ছে। এর জড়িতদের বিরুদ্ধে আইনত ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে এবং যারা এসকল কাজের সাথে জড়িত তাদের বিরুদ্ধেও ব্যবস্থা নেওয়া হবে। এখন থেকে জনস্বার্থে এই অভিযান চলতে থাকবে।

এই সংবাদটি শেয়ার করুন
Share on Facebook
Facebook
Tweet about this on Twitter
Twitter
Pin on Pinterest
Pinterest

Leave a Reply

Your email address will not be published.